গভীররাতে সেহরি বিতরণ করেন শীতলক্ষ্যা ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশন

122

রূপগঞ্জ(নারায়ণগঞ্জ)প্রতিনিধি: নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে শীতলক্ষ্যা ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের উপদেষ্টা হাবীবুর রহমান শাহিনের সহযোগিতায় গভীর রাতে সেহরি বিতরণ করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১২এপ্রিল) দিবাগত রাতে শীতলক্ষ্যা ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশনের সদস্যরা অসহায়, ছিন্নমূল ও রিকশা চালকদের হাতে হাতে সেহরি বিতরণ করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, শীতলক্ষ্যা ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশনের

প্রতিষ্ঠাতা সাংবাদিক বিপ্লব হাসান। আরও উপস্থিত ছিলেন, জাহিদুল ইসলাম, কাজী রেখা, সৈয়দ আরিফুল ইসলাম, নাসিম উসমান, নুসরাত জাহান,তানজিলা, সাজিয়া সাজমিন, সোহানা প্রমুখ। উল্লেখ্য, সংগঠনটি প্রতিষ্ঠার পর থেকে এতিম শিশুদের উন্নত মানের খাবার, শীত বস্ত্র বিতরণ, ঈদের পোষাক,ঈদ সামগ্রী বিতরণ ও কোরআন শরীফ বিতরণ, শিক্ষার্জনের জন্য পথশিশুদের পাঠশালাসহ বেওয়ারিশ লাশ দাফনমূলক সামাজিক কাজ করে আসছেন। বিতরণকালে শীতলক্ষ্যা ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সাংবাদিক বিপ্লব হাসান বলেন, শীতলক্ষ্যা ওয়েল ফেয়ার

ফাউন্ডেশনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান শাহিনের বাবা ছিলেন মুক্তিযোদ্ধা সংগঠক এ কে এম হাসমত আলী। তিনি যুদ্ধের সময় মুক্তিযোদ্ধাদের বিনা মূল্যে খাওয়াতেন। তিনি তার বাবার আদর্শটাকে ধরে রেখেছেন। বাবার মতো হাবিবুর রহমান শাহিনও যদি শুনেন কোনো জায়গায় মানুষ না খেয়ে আছেন। তখন শুনতে দেরি হলেও খাওয়াতে দেরি হয় না। হাবিবুর রহমান শাহিন শীতলক্ষ্যা ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশনকে বলেন এই রমজান মাসে কেউ যেন না খেয়ে রোজা না রাখে আপনারা এদিকে সজাগ দৃষ্টি রাখবেন।