সরিষাবাড়ীতে ধান ও চাল সংগ্রহ অভিযানের লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হয়নি

79

তৌকির আহাম্মেদ হাসু স্টাফ রিপোর্টারঃ শেখ হাসিনার বাংলাদেশ ক্ষুধা হবে নিরুদ্দেশ এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জামালপুরের সরিষাবাড়ী সরকারিভাবে খাদ্য গুদামে ২০২১-২০২২ অর্থ বছরের আমন ধান ও চাল সংগ্রহ অভিযানের লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হয়নি। বাজারে ধানের দাম বেশি পাওয়ায় গুদামে ধান দিতে আগ্রহী নন কৃষক।খাদ্যগুদাম ধান-চাল সংগ্রহের সরকার নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে পারেনি। সরিষাবাড়ী খাদ্য গুদাম সুত্রে জানা যায়, ২০২১-২০২২ অর্থ বছরের আমন ধান ও চাল সংগ্রহে উপজেলার ৮টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় ২শ ৭৭ জন কৃষকের কাছ থেকে মোট ধান সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ৮শ ৩১ মে: টন। এখন পর্যন্ত কোন প্রকার ধান ক্রয় করতে পারে নাই।চালের নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা ৮শ ৪০ মে:টন ধরা হয়েছে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে চুক্তিভুক্ত উপজেলার ডিলারের কাছ থেকে ৮শ ১২ মে:টন চাল সংগ্রহ করা হয়েছে। সরকার প্রতি কেজি ধানের মূল্য ২৭ টাকা ও প্রতি কেজি চাল ৪০ টাকা নির্ধারণ করে দেয়। স্থানীয় একাধিক কৃষক বলেছেন, এবার খোলা বাজারে ধানের দাম ভালো পাওয়ায় সেখানেই ধান বিক্রি করা হয়েছে। সরকার ১ হাজার ৮০ টাকা মণ দরে ধান কিনলেও ধান শুকানো, ধান দেওয়ার পরও টাকা উঠাতে গিয়ে নানা রকম ঝামেলা পোহাতে হয়। আর আড়তদারদের নিকট ঝামেলা ছাড়াই মাঠ থেকে কাঁচা ধান কেটে নিয়ে বিক্রি করা যায়। তাই আমরা খাদ্য গুদামে ধান না দিয়ে খোলা বাজারে বিক্রি করেছি। এ ব্যাপারে সরিষাবাড়ী ভারপ্রাপ্ত খাদ্য কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাইফুল মালেক বলেন, কৃষকদের কাছ থেকে ধান ক্রয় করতে পারছি না তবে ডিলারদের সাথে ৮শ১২ মে: টন চাল ক্রয় করার জন্য চুক্তি করা হয়েছে।